কখন ব্যাকলিংক করবেন? কোন ধরণের Backlink বেশি কার্যকর?

ব্যাকলিংক হল একটি পুরনো এবং কার্যকারী এসইও কৌশল এবং অর্গানিক ট্রাফিক বৃদ্ধির একটি অন্যতম উৎপাদনশীল উপায়। ব্যাকলিংক অর্জন করা কার্যকরী এসইও পরিকল্পনার একটি প্রয়োজনীয় অংশ। আমরা যারা ব্লগিং করছি বা বিভিন্ন ওয়েবসাইটে লেখালেখির কাজ করছি তাদের কাছে সবচেয়ে বড় সমস্যার বিষয় হল টার্গেট কীওয়ার্ড রাঙ্কিং করানো।

কারণ টপিক রিলেটেড কীওয়ার্ড গুলিকে যত রেঙ্ক করাতে পারবেন তত বেশি পরিমাণে ট্রাফিক বা ভিজিটর আপনার ব্লগে ভিজিট করবে। আর এই ট্রাফিক বাড়ানোর একটি উপায় হলো ব্যাকলিংক প্রস্তুত করা। এবার প্রশ্ন হচ্ছে…

ব্যাকলিংক কখন প্রস্তুত করব?

ব্যাকলিংক আমাদের তখনই প্রস্তুত করা উচিত যখন আমাদের ওয়েবসাইটটি ইউজার ফ্রেন্ডলি হবে এবং অবশ্যই এসইও ফ্রেন্ডলি হবে। এছাড়াও আপনার লেখাগুলি সকলের থেকে আলাদা এবং সমৃদ্ধ হতে হবে যার মধ্যে সঠিক তথ্য থাকবে এবং আপনার ওয়েবসাইটটি সবসময়ের জন্য মেইনটেন এবং অপটিমাইজ থাকতে হবে।

মূলকথা হলো ব্যাকলিংক তখনই গঠন করবেন যখন আপনার ওয়েবসাইটটির মধ্যে কোয়ালিটি কনটেন্ট এবং কোয়ান্টিটি কনটেন্ট থাকবে, তাতে আপনার ওয়েব পেজের রেঙ্ক বাড়বে। এবার প্রশ্ন হচ্ছে…

কোন কোন ব্যাংকলিঙ্ক গুলো বেশি কার্যকর?

দেখুন এমনও হতে পারে আপনার একটি কনটেন্ট সার্চ ইঞ্জিন এর প্রথম পেজে আসে নাই, কিন্তু দ্বিতীয় পেজে রয়েছে। এমন অবস্থায় আপনি যদি ব্যাকলিংক শুরু করতে পারেন এবং কিওয়ার্ড নিয়ে আরেকটু বেশি রিচার্জ করতে পারেন তাহলে কিন্তু আপনার ওয়েব পেজটি দ্বিতীয় পেজ থেকে প্রথম পেজে উঠে আসতে পারে।

নিচে কয়েকটি কার্যকরী ব্যাকলিংক পদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করছি:

  • প্রথমে আপনাকে কার্যকরী ব্যাকলিংক তৈরি করার জন্য ফোরাম পোস্টিং এ অংশগ্রহণ করতে হবে কারণ ফোরাম একটি বড় জায়গা যেখানে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়। এছাড়াও আপনি বিভিন্ন ব্লগে কমেন্ট করে ও কার্যকারী ব্যাকলিংক তৈরি করতে পারেন।
  • আপনি আপনার পোষ্টের লিংক করি বিভিন্ন সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইটে ছড়িয়ে দিন।
  • আপনাকে ব্রোকেন লিঙ্ক গঠন করার যে পদ্ধতি গুলো আছে সেগুলো ব্যবহার করতে হবে।
  • অন্য ব্লগে গেস্ট পোস্ট করুন।
  • ডুফলো লিংক এবং নোফলো লিংক এই দুটির মধ্যে পার্থক্য বুঝার চেষ্টা করুন এবং ডু ফলো ব্লগ গুলিতে বা ব্লগের পোষ্টগুলি তে কমেন্ট করুন।
  • বিভিন্ন প্রশ্ন উত্তর সাইট এ অংশগ্রহণ করুন। যেমন: Quora
  • আপনার ব্লগের পোষ্টগুলি ওপরে পিডিএফ তৈরি করুন এবং সেগুলি শেয়ার করুন বিভিন্ন পিডিএফ শেয়ারিং সাইট এ।
  • ভাইরাল হাওয়া বিষয়ের উপর বা কোন বিতর্কিত বিষয় এর উপর ব্লগে লিখতে চেষ্টা করুন।
  • এছাড়াও আপনি কার্যকরী ব্যাকলিংক তৈরি করার জন্য উইকিপিডিয়ার ব্যবহার করতে পারেন।উইকিপিডিয়াতে আপনি যে পোস্ট গুলি লিখেছেন সেগুলিকে রিসোর্স লিংকে যোগ করুন।

সবশেষে বলা যেতে পারে, আপনি উপরের পদ্ধতি গুলি ব্যবহার করে উপকৃত হবেন এবং যদি আমি এই আলোচনায় কোন বিষয় আলোচনা করতে ভুলে গিয়ে থাকে তাহলে সেটি অবশ্যই কমেন্ট সেকশনে জানাবেন।